বগুড়ায় ৫ বছরের শিশুকে ধর্ষণ করল কিশোর!

1

বগুড়ার ধুনটে পাঁচ বছরের শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে করা মামলায় তিনজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গতকাল শুক্রবার ধর্ষণের ঘটনার পর অভিযুক্ত ধর্ষক ও তার বাবা-মাকে আটক করে পুলিশ। আজ শনিবার শিশুটির মা বাদী হয়ে মামলা করলে তাদের গ্রেপ্তার দেখানো হয়।

শিশুর পরিবার ও পুলিশের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, শিশুটি নানার বাড়িতে থাকে। সেখানে সে প্রথম শ্রেণিতে পড়ে। ১৫ আগস্ট সে ধুনটে নিজের বাড়িতে আসে। গতকাল শুক্রবার সে বাড়ির পাশে খেলাধুলা করছিল। এ সময় ১৪ বছরের কিশোর প্রতিবেশী মেয়ের বাড়িতে নিয়ে গিয়ে তাকে ধর্ষণ করে। এ সময় বাড়িতে কেউ ছিল না। একপর্যায়ে চিৎকার শুনে লোকজন ঘটনাস্থলে গিয়ে রক্তাক্ত অবস্থায় শিশুটিকে উদ্ধার করে বগুড়ার শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে। পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে গতকাল রাত ১১টার দিকে ওই কিশোরের মা–বাবাকে আটক করে। পরে তাঁদের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী রাত ১২টার দিকে অভিযুক্ত কিশোরকে এক আত্মীয়ের বাড়ি থেকে আটক করে পুলিশ।

এ ঘটনায় শিশুটির মা বাদী হয়ে ওই কিশোর ও তার মা–বাবার বিরুদ্ধে আজ শনিবার সকালে ধুনট থানায় মামলা করেন। মামলার পর তাদের গ্রেপ্তার দেখানো হয়।

শিশুটির মা বলেন, ‘আমার স্বামী দেশের বাইরে থাকে। মেয়েটি ওর নানার বাড়িতে থেকে লেখাপড়া করছে। কয়েক দিন আগে বাড়িতে এসেছে। ঘটনার সময় আমার মেয়ের চিৎকার শুনে ঘরে যাই। দেখি আমার মেয়ে রক্তাক্ত অবস্থায় ঘরের মেঝেতে পড়ে আছে। আমাকে দেখে ওই ছেলে দৌড়ে পালিয়ে যায়।’

ধুনট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিজানুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ধর্ষণের শিকার শিশুটির পরীক্ষা-নিরীক্ষা করার ব্যবস্থা করা হয়েছে। থানাহাজতে থাকা অবস্থায় কিশোরটি পুলিশের কাছে ধর্ষণের কথা শিকার করেছে। কিশোর ও তার মা–বাবাকে আদালতে পাঠানো হয়েছে।

খবরঃ প্রথম-আলো

Share.



1 Comment