‘অনুভূতিহীন দেয়ালে বন্দী’

সাহিত্য

অনুভূতিহীন দেয়ালে বন্দী’
জুবায়ের ইবনে কামাল

উন্মত্ত তুমি এখোনো বোধশক্তিহীন, তবুও, সময় আজ তোমার দিকেই ঝুঁকে আছে।
জেলখানায় বন্দী মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামির যে অবস্থা,এর চেয়ে ভালো আমি নেই। নিজেকে মানুষ ভাবতে ভয় হয়। মানুষগুলো কেমন জানি, সবচেয়ে বড় কথা তুমিও একজন মানুষ।

প্রতিবার জিতে যাও তুমি,কারণ খেলতে ভালোবাসো। আর আমি? দর্শক হয়ে বলগুলো কুড়িয়ে দিই, প্রতিদ্বন্দ্বীহীন খেলায় কখোনো আবার আমাকেই প্রতিদ্বন্দ্বী ভেবে ভুল করে বসো।

আচ্ছা,পুতুল চেনো? ঐ যে মেলায় পাওয়া যায়,মাটির পুতুল। চেনো বোধহয়, প্রাণশক্তিহীন পুতুলগুলোকে আদর করলেও যেমন খুশি হয় না,ভেঙে টুকরো টুকরো করলেও তেমন অখুশী হয় না। পুতুলের যে জীবন নেই!

পুতুলের স্থানে নিজেকে বসিয়ে একটা ধাক্কা পেয়েছি, আমার যে অল্প-স্বল্প প্রাণ আছে, একটু-আধটু জীবনও আছে।
যোগ-বিয়োগের গল্পে ভাগ্যে বিশ্বাসী তুমি ‘যোগ’-কে এড়িয়ে চলো।

অথচ জানো না,বিয়োগ-যোগের প্রতিটি গল্পের নায়ক এই আমি। ক্যাকটাসের প্রতিটা কাঁটা আমি চিনি, বিষাক্ত অথবা সুন্দর।
যদি কখোনো গভীর ঘুম থেকে হঠাৎ জেগে দ্যাখো হাতে একটা হলুদ ফুল নিয়ে দাঁড়িয়ে আছি, খুব কি অবাক হবে? তোমার রঙিন স্বপ্নকে ভাঙতে নয় রাঙিয়ে দিতে দাঁড়িয়ে থাকব। প্রেতাত্মা যাবে মিনতি নিয়ে, আমি দেখবো শত-কোটি মাইল দূর থেকে। ভালো থাকবে জেনেও বলি,ভালো থেকো।

zubayer ibn kamal
জুবায়ের ইবনে কামাল