কবিতাঃ দূরে থাকো, সর্বোচ্চ দূরত্বে

সাহিত্য
দূরে থাকো, সর্বোচ্চ দূরত্বে
-আহসান মুহাম্মাদ

সমুদ্র,
আমি আসছি।
আমার ‘ভাল্লাগে না’ নামক বিশেষণগুলো তোর বুকে আঁটবে তো?
কি বললি? ডেমো চাস? বিশেষণের ডেমো?
এই ধর দুঃখ- কষ্ট- অশান্তি- অনীহা ইত্যাদি…
এই ইত্যাদির তো শেষ নেই রে
আছে শুধু বিশেষণগুলোর সিনোনিমস।

আমায় একটু ভাসিয়ে রাখবি?
সব ইত্যাদিগুলো ভাসিয়ে দেবো
সব ডেমো, সব সিনোনিমস, সব বিশেষণ ডুবিয়ে দেবো
তারপর এক নিঃশ্বাস চুবিয়ে দাঁড়িয়ে থাকব তীরে
গা ঝেড়ে হবো পবিত্র। দেখবো সূর্যাস্ত। সূর্যস্নান…
বিনিময়ে?
বিনিময়ে তুই বরং কিছু দিয়ে দে আমায়
তোর ক্লান্ততা আমায় দিয়ে দে
আমার বিশেষণগুলো বয়ে বেড়াতে ক্লান্ত হয়ে যাবি যে
অথবা তোর বিশালতা
এক বিশাল বুক নিয়ে বাঁচবো আমি।
কারও দুঃখ-ভালোবাসা যেন আমায় না ছুঁয়ে যায়
তাছাড়া তোর লবণাক্ততাও দিয়ে দিতে পারিস চোখে
ইদানীং দৃষ্টিমেঘ বড় পানসে আমার।