কাঠফাটা রোদে পুড়ছে রাজশাহী

রাজশাহী

শরতে এসে তীব্র রোদে পুড়ছে রাজশাহী। যেন চৈত্রের খরা শুরু হয়েছে। রাজশাহীর ঝকঝকে নীল আকাশে উড়ে বেড়াচ্ছে মেঘের ভেলা। কিন্তু বৃষ্টি নেই। দিনভর ঝলমলে রোদ তবে সে রোদের তীব্রতা ঝাঝালো। গায়ে বিধছে আগুনের মত। বৃষ্টি নেই। তাই বেড়ে গেছে তাপমাত্রা। আবহাওয়া অফিস বলছে, এই শরতে রাজশাহী অঞ্চলে চলছে মৃদু তাপদাহ।

রাজশাহী আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, তাপমাত্রা ৩৬ থেকে ৩৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যে থাকলে তাকে মৃদু তাপদাহ বলে। বুধবার রাজশাহীর সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৬ ডিগ্রি সেলসিয়াসই পাওয়া গেছে। আর ভোরে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিলো ২৬ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এদিকে মৃদু তাপদাহের ভ্যাপসা গরমে নাজেহাল হচ্ছেন রাজশাহীর মানুষ। ঘরে-বাইরে সবখানেই ভ্যাপসা গরম। বিশেষ করে দুপুরে ঠা ঠা রোদে তাপমাত্রা আরও বেশি অনুভূত হচ্ছে। এতে মানুষ অল্পতেই ক্লান্ত হয়ে পড়ছে। ভীড় বাড়ছে রাস্তার ধারের ফুটপাতে থাকা বিভিন্ন ধরনের কোমল পানীয়ের দোকানগুলোতে।

রাজশাহী আবহাওয়া অফিসের উচ্চ পর্যবেক্ষক রাজীব খান বলেন, শরতের শুরু থেকেই বৃষ্টি কমে গেছে। সর্বশেষ ২৬ আগস্ট শূন্য দশমিক ৭ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হয়েছে। এ ধরনের ছিটেফোটা বৃষ্টিতে তাপমাত্রা কমবে না। দরকার ভারী বর্ষণ। কিন্তু আপাতত ভারী বর্ষণের কোনো সম্ভাবনা নেই। তাই মৃদু তাপদাহ চলতে পারে আরও কয়েকদিন।

খবর কৃতজ্ঞতাঃ Daily Sunshine