ঘোষণা দিয়েও ধর্মঘটে যায়নি মোটর শ্রমিক ইউনিয়ন

রাজশাহী রাজশাহী বিভাগ

ঘোষণা দিয়েও ধর্মঘটে যায়নি রাজশাহী জেলা মোটর শ্রমিক ইউনিয়ন।

বৃহস্পতিবার (১৫ অক্টোবর) রাত পৌনে ১১টার দিকে পাঁচ পরিবহন শ্রমিককে আটকের প্রতিবাদে রাজশাহী থেকে সব রুটে যান চলাচল বন্ধ করে দেয় শ্রমিক ইউনিয়নের নেতারা। ওই সময় শুক্রবার (১৬ অক্টাবর) ভোর ৬টা থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য পরিবহন ধর্মঘটের ডাক দেওয়া হয়।

এ ব্যাপারে প্রশ্ন করা হলে রাজশাহী জেলা মোটর শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি কামাল হোসেন রবি জানান, রাতে যান চলাচল বন্ধ করা হলেও সকাল থেকে চলাচল করছে। এ ব্যাপারে সংবাদ সম্মেলন করে পরে বিস্তারিত জানানো হবে বলে জানান ওই পরিবহন নেতা।

এর আগে বৃহস্পতিবার রাতে পাঁচ শ্রমিককে আটকের ঘটনায় মহানগরীর শিরোইল বাস টার্মিনালের সামনের রাস্তা বন্ধ করে বিক্ষোভ করেন তারা। হঠাৎ করে বাস চলাচলা বন্ধ করে দেওয়া হয় ঢাকাসহ দূর-দূরান্তের বাস। এতে সাধারণ যাত্রীরা ভোগান্তিতে পড়েন।

পরিবহন শ্রমিক নেতার জানান, বোয়ালিয়া থানার দুই উপপরিদর্শক (এসআই) মহিউদ্দিন ও উত্তমকে প্রত্যাহার না করা পর্যন্ত শুক্রবার ভোর থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য ধর্মঘটের ডাক দেওয়া হয়েছে।

পরিবহন শ্রমিকরা জানান, মহানগরীর তালাইমারী এলাকা থেকে বোয়ালিয়া থানা পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই) মহিউদ্দিন ৫ পরিবহন শ্রমিককে আটক করে থানায় নিয়ে যায়। এ ঘটনা শ্রমিকরা জানতে পেরে বাস টার্মিনালের সামনে রাস্তা অবরোধ করেন। সেই সঙ্গে সব রুটে যান চলাচল বন্ধ করে দেয়।

পরে বোয়ালিয়া থানা পুলিশ দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করে। এ সময় বোয়ালিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহাদাত হোসেন ওই ৫ শ্রমিককে ছেড়ে দেওয়ার আশ্বাস দিলে শ্রমিকরা অবরোধ তুলে নেন।

রাতে রাজশাহী মোটর শ্রমিক ইউনিয়নের প্রচার সম্পাদক আনোয়ার পারভেজ জানান, শুক্রবার ভোর থেকে রাজশাহী থেকে সকল রুটে অনির্দিষ্টকালের জন্য পরিবহন ধর্মঘটের ডাক দেওয়া হয়েছে। বোয়ালিয়া থানার দুই উপপরিদর্শক (এসআই) মহিউদ্দিন ও উত্তমকে প্রত্যাহার না করা পর্যন্ত এ ধর্মঘট চলবে বলে জানানো হয়।

এ ঘটনায় রাত ১০টার থেকে ঢাকাগামী বাসগুলো হঠাৎ করে বন্ধ হয়ে যাওয়ায় যাত্রীদের পড়তে হয় চরম ভোগান্তিতে।

বাংলানিউজ