প্রেমের সম্পর্ক না মানায় রাজশাহীর গ্লোবাল নার্সিং কলেজছাত্রীর আত্মহত্যা

রাজশাহী

প্রেমের সম্পর্ক মেনে না নেওয়ায় রাজশাহীর গ্লোবাল নার্সিং কলেজের ছাত্রী শায়লা খাতুন (১৯) আত্মহত্যা করেছেন।

খবর পেয়ে শুক্রবার (২৬ জুলাই) সকালে পুলিশ তার মরদেহ উদ্ধার করে। পরে ময়নাতদন্তের জন্য তা রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতাল মর্গে পাঠায়।

শায়লা রাজশাহীর পবা উপজেলার চর মাঝারদিয়াড় গ্রামের মাইদুল ইসলামে মেয়ে।

রাজশাহীর বোয়ালিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নিবারণ চন্দ্র বর্মণ জানান, সাত মাস আগে মহানগরের শালবাগান এলাকায় থাকা গ্লোবাল নার্সিং কলেজে ভর্তি হন শায়লা। এরইমধ্যে আজিজুল ইসলাম নামে এক ছেলের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে তার এবং তাকেই বিয়ে করতে চান। বিষয়টি জানাজানির পর পরিবার তা মেনে নিতে পারেনি।

এর পরিপ্রেক্ষিতে শায়লাকে ওই ছেলের সঙ্গে সম্পর্ক বিচ্ছিন্ন করতে বলা হয়। কিন্তু তিনি তা করেননি। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, এ ঘটনার সূত্র ধরেই তিনি আত্মহত্যা করেছেন।

ওসি বলেন, তাদের ধারণা বৃহস্পতিবার (২৫ জুলাই) দিনগত রাতের কোনো এক সময় মেসের মধ্যে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন শায়লা। এর পরও তার মৃত্যুর কারণ নিশ্চিত হওয়ার জন্য মরদেহ ময়নাতন্তের জন্য রামেক হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ব্যাপারে থানায় মামলা হবে।

খবর কৃতজ্ঞতাঃ বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর