বন্ধুর মোটরসাইকেল যোগে পাকশীতে ঘুরতে গিয়ে সড়কে প্রাণ গেল বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীর

পাবনা রাজশাহী বিভাগ

পাবনার দাশুড়িয়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের স্থাপত্য বিভাগের এক শিক্ষার্থী নিহত হয়েছেন। শুক্রবার দুপুর আড়াইটার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত শিক্ষার্থীর নাম সুবর্ণা কাকন। সে পাবিপ্রবির স্থাপত্য বিভাগের ৩য় বর্ষ ১ম সেমিস্টারের শিক্ষার্থী।

পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর আওয়াল কবির জয় জানান, সুবর্ণা তার এক বন্ধুর মোটরসাইকেল যোগে ঈশ্বরদীর পাকশীতে বেড়াতে যাচ্ছিল। দাশুড়িয়া বাইপাস মোড় এলাকায় আসলে সে অসাবধানতাবশত মোটরসাইকেল থেকে পড়ে যায়। এ সময় পেছনে থাকা একটি দ্রুতগামী পিকআপ ভ্যানের চাপায় ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়।

সুবর্ণার মৃত্যুতে পাবিপ্রবি শিক্ষার্থীদের মধ্যে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। গভীর শোক প্রকাশ করে শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন পাবিপ্রবি শিক্ষক সমিতির সভাপতি আওয়াল কবির জয়, স্থাপত্য বিভাগের বিভাগীয় প্রধান বিজয় কুমার দাস, সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডিন ড. আব্দুল আলীম।

খবরঃ শীর্ষ খবর

33 thoughts on “বন্ধুর মোটরসাইকেল যোগে পাকশীতে ঘুরতে গিয়ে সড়কে প্রাণ গেল বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীর

  1. খুব খুশি হয়েছি ৷ কারণ হুন্ডায় গার্ল ফেন্ড থাকলে মনে করে ওর বাপের রাস্তা…,,,

  2. ভুলেগেলে হবেনা তুমি একজন মুসলিম নারী, যতটুন সম্ভব কোর-আনকে মেনেচলা। নারী জাতীর জন্য আল্লাহ বলেন…আয়াত গুলো পড়ে দেখ।।
    সূরা আহযাব, আয়াত- ৩৩
    সূরা আমবিয়া, আয়াত-৮৭

  3. বন্ধুর না বলে একটা মেয়ে মটরসাইকেল দূর্ঘটনায় মারা গেসে বললে কি হইত রে editor. মানুষ মারা গেসে এটা নিয়ে উপহাস তৈরির জন্য নাকি আর নিজের নওউজ এর কমেন্ট বাড়ানো নাকি। যত্ত সব

  4. আলহামদুল্লিহ, পড়ে একটু খারপ লাগলে মজা লাগছে কারন তারা মা বাবার অবাধ্য ছেলে বা মেয়ে????

  5. ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন..
    মৃত্যুর পরই মানুষের সকল হিসাব নিকাষ শুরু হয়ে যায়। মেয়েটির কর্ম ফল সে পাবেই, কিন্তু জীবিতদের উচিত উপহাস না করে মৃতদের জন্য দোয়া করা। আল্লাহ তার সকল পাপ ক্ষমা করে দিক, আমিন

  6. হায়রে মানুষ, একটা মানুষ মারা গেছে অথছ এই খবরের কমেন্ট গুলো পড়ে অবাক হচ্ছি, আমরা মৃত্যু নিয়েও পরিহাস করছি । আমরা কবে মানুষ হবো?

  7. এখানে উপহাসের কী হলো? এই বিশেষ দিনটিতে বন্ধুদের সাথে বেড়ানোর মধ্যেও আমরা অপরাধের গন্ধ খুঁজে পাই। দুর্ভাগ্য মেয়েটি এমন একটি জাতির মধ্যে জন্ম নিয়েছিল যে, যে জাতি নিজস্ব সাংস্কৃতির কথা ভুলে গিয়ে আরবীয় “নমাজ-নমাজ” সাংস্কৃতির পাপ পূণ্য গুনে বেড়াই।

  8. ঐ কুরান টুরান ছাড়া আমাদের কোনও জ্ঞান কান্ড নাই তাই না? এই বিশেষ দিনটিতে বন্ধুদের সাথে বেড়াতে যাওয়ার মধ্যেও যে ধর্ম পাপ বা গুনা (counting) খুঁজে পায় সে ধর্ম কোন সুসভ্য জাতির জন্য নয় । দুর্ঘটনার জন্য কোন সিস্টেম দ্বায়ী সেটা মাথায় আসার মাথা ধর্মটর্মতে খেয়ে ফেলেছে তাই না?

  9. এরকম জাত-বেয়াদব শুধু মুসলমানদের মধ্যেই আছে, যাদের জিহ্বা থেকে মৃত ব্যক্তিও রেহাই পায়না।

  10. আপনি কয়েকদিন কোন মহিলা বান্ধবীকে নিয়ে বাইরে ঘুরে বেড়ান, বাসায় নিয়ে আসেন তারপর আপনার স্ত্রীই বুঝিয়ে দিবে ছেলে মেয়েতে বন্ধুত্ব ভাল না অপরাধ।

  11. Sheikh Ruhul, নামাজ কোন সংস্কৃতি না। এটা আল্লাহর হুকুম। এটা কোন দেশীয় জাতির জন্য নির্দিষ্ট না। এটা পুরো মুসলিম জাতির জন্য আল্লাহর হুকুম। আর এটা অবশ্যই পালনীয়।

  12. Sheikh Ruhul, জ্ঞান কান্ড যদি বলতে হয় তাইলে ওই কুরআন-ই যথেষ্ট ভাই। এই বুঝ যতদিন না আপনার মাথায় আসবে ততদিন আপ্নার নিজের মাঝেও সভ্য অসভ্যতার বিচার করার গুন আসবে না।

  13. মানুষ কেন এমন, সব বিষয়কে নিয়ে পরিহাস করতে অনেক ভালোবাসে,

Comments are closed.