বাংলাদেশে আসছেন ম্যারাডোনা!

খেলাধুলা জাতীয় রাজশাহী রাজশাহী বিভাগ

ডিয়েগো ম্যারাডোনা। এক নামেই গোটা বিশ্ব যাকে চেনে। ফুটবলের ক্ষুদে এক জাদুকর। ১৯৮৬ বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনাকে শিরোপা এনে দিয়েছিলেন একক নৈপুণ্যে। সে কারণে নিজ দেশ আর্জেন্টিনায় তিনি ফুটবল ঈশ্বর। গোটা পৃথিবীতেও তার ভক্ত-সমর্থকের অভাব নেই। কে সেরা, পেলে না ম্যারাডোনা? এমন প্রশ্নে ভাগ হয়ে যায় গোটা বিশ্ব। চলে কথার তুবরি। বাকি থাকে না বাংলাদেশও।

বিশ্বকাপের সময় আর্জেন্টিনা-ব্রাজিলের পতাকায় ছেয়ে যায় বাংলাদেশের প্রতিটি বাড়ির ছাদ। অথচ খ্যাতির মধ্য গগনে থাকা অবস্থায় বাংলাদেশ নামের একটি দেশ আছে, তা নাকি জানতেনই না ম্যারাডোনা। ১৯৯৪ বিশ্বকাপে মাদক গ্রহণের অভিযোগে ম্যারাডোনা যখন নিষিদ্ধ হলো, সেই দুঃখে বাংলাদেশের অনেক ম্যারাডোনা ভক্ত আত্মহত্যাই করতে গিয়েছিল, সবার হা হুতাশ ছিল হৃদয়স্পর্শী। সেই আবহ কি টের পেয়েছিলেন ম্যারাডোনা? পরে অবশ্য জেনেছিলেন। সেই ম্যারাডোনা বাংলাদেশে আসছেন আগামী বছরই (২০১৬ সালে)!

কিছুদিন ধরেই শোনা যাচ্ছিল এমনটি। ব্রিটেন ভিত্কিক ইউকে সকার লিগ প্রতিষ্ঠানের উদ্যোগে বাংলাদেশে হবে ফ্র্যাঞ্চাইজি ফুটবল লিগ। যার প্রধান নাকি থাকবেন ম্যারাডোনা। মাঝে এমন খবর মিলিয়ে গিয়েছিল। তবে আবার তা পাকাপোক্ত হয়েই ফিরে এসেছে। আগামী বছরের নভেম্বরেই হবে এই ফুটবল লিগ। তবে লিগের প্রধান হিসাবে ম্যারাডোনা থাকছেন না। কিন্তু লিগের উদ্বোধনীতে তিনি আসবেন, তা প্রায় নিশ্চিত।

মঙ্গলবার সকালে বাফুফে সভাপতি কাজী সালাউদ্দিনের গুলশানের বাসায় ফ্র্যাঞ্চাইজি ফুটবল লিগ নিয়ে অনুষ্ঠিত এক বৈঠকে এ ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। আটটি দল নিয়ে আয়োজিত এই ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগের আয়োজনে বাফুফের সঙ্গে এই ইউকে সকাল লিগ তো থাকছেই, সঙ্গে থাকছে ভারতের সেলিব্রেটি ম্যানেজমেন্ট গ্রুপ (সিএমজি) ও বাংলাদেশের ব্যবসায়িক গোষ্ঠী সাইফ পাওয়ারটেক।

ম্যারাডোনার আসার সম্ভাবনা কতটুকু। ঘুড়ে ফিরে আসছে সেই প্রশ্ন। ভারতের সেলিব্রেটি ম্যানেজমেন্ট গ্রুপের নির্বাহী পরিচালক ভাস্বর গোস্বামী আশার পারদ চড়া রেখেই বলেছেন, ‘ম্যারাডোনাকে বলা আছে। তাঁর কাছ থেকে আমরা লিখিতভাবে সময় চেয়ে রেখেছি। আশা করছি তাঁকে এই প্রতিযোগিতায় নিয়ে আসা যাবে।’

দেশের মৃতপ্রায় ফুটবলকে চাঙ্গা করতে এমন টুর্নামেন্টের বিকল্প নেই। এর উপরে যদি আনা যায় আর্জেন্টাইন ফুটবল কিংবদন্তী ডিয়েগো ম্যারাডোনাকে, তাহলেতো কথাই নেই। তার আগমে হয়তো জেগে উঠবে ফুটবল। যা হবে বাংলাদেশের ফুটবলের ইতিহাসে এক অনন্য দিক। কয়েক বছর আগে ঢাকা ঘুড়ে গেছেন বর্তমান বিশ্বের অন্যতম সেরা ফুটবলার লিওনেল মেসি। এবার আসার অপেক্ষায় আরেক ফুটবল নক্ষত্র ডিয়েগো ম্যারাডোনা।

আহা, কী রোমাঞ্চ। খালি চোখে ম্যারাডোনাক দেখার অপেক্ষায় থাকুন সবাই!

radiopadma