বাঘায় রাতের আঁধারে জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেটের সাহায্য বিতরণ

বাঘা

রিপন মাহমুদ, বাঘা

মহামারী কোভিড-১৯ এর প্রভাবে সারা বিশ্বে দিন-দিন বাড়ছে মৃত্যুর মিছিল। ভাইরাসটির সংক্রমণ থেকে রক্ষার জন্য সারা বাংলাদেশের মত যখন রাজশাহীতে লকডাউন বিরাজ করছে তখন সাধারণ অসহায় খেটে খাওয়া মানুষের বিপদের শেষ নেই। একদিকে তারা ঘরবন্দী অপরদিকে ভুগছেন নিত্য প্রয়োজনীয় খাদ্যদ্রব্যের সংকটে।

এমনই ক্রান্তিকালে দরিদ্রদের পাশে দাঁড়িয়েছে রাজশাহী বাঘা উপজেলার দিঘা গ্রামের সুমন কর্মকার। বর্তমানে তিনি টাঙ্গাইল জজ কোর্টে জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট হিসেবে কর্মরত আছেন। আজ সুমন তাঁর নিজ এলাকায় রাতের আঁধারে দরিদ্রদের মাঝে খাদ্য সহায়তা প্রদান করেছেন। এর মধ্যে ছিলো চাল, ডাল ও আলু।

খাদ্য সহায়তা পাওয়া এক মহিলা বলেন, তাঁর স্বামী গত ৮ দিন হলো নওগাঁ জেলায় ধান কাটতে গেছেন। এখনো সপ্তাহখানেক থাকবেন। বর্তমানে বাড়িতে তেমন কোন খাবার ছিলো না। সুমনের খাবারে তাঁর অনেক উপকার হলো। একজন নিরহংকারী সুমন ঈদ, পূজাসহ বিভিন্ন অনুষ্ঠানেও তাঁদের সহায়তা করেন।

রাতের আধাঁরে কেন খাদ্য সহায়তা দিচ্ছেন জানতে চাইলে তিনি বলেন, করোনা সংকটে অনেক সামর্থ্যবান ব্যক্তিও বিরূপ পরিস্থিতির সম্মুখীন হয়েছেন। নাম-পরিচয় প্রকাশ পেলে অনেকে হয়তো চক্ষুলজ্জায় ত্রাণ নিতে পারবেন না। তাছাড়া তার উদ্যোগে যারা আর্থিক ও মানসিকভাবে সহযোগিতা করেছেন তাদের সবার কাছে তিনি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।