রাজশাহীতে এইচএসসি পরীক্ষার্থীর রগ কেটে হত্যার চেষ্টা

গোদাগাড়ী রাজশাহী

রাজশাহীর গোদাগড়ীতে রাতে আঁধারে ঘরে ঢুকে এইচএসসি পরীক্ষার্থীর হাতের রগ কেটে দিয়েছে দুর্বত্তরা। গুরুতর অবস্থায় রাশিকুল (১৭) নামে ওই পরীক্ষার্থীকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার রাতে উপজেলার গোগ্রাম হাট পাড়ার এ ঘটনা ঘটে। শুক্রবার রাত ৯টায় এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত তার জ্ঞান ফেরেনি। আহত রাশিকুল উপজেলার গোগ্রাম হাটপাড়া গ্রামের টেবলুর ছেলে।

রশিকুলের বাবা জানান, বৃহস্পতিবার রাত ১০টার দিকে তার সঙ্গে রাশিকুল স্থানীয় মোড়ে চা খেয়ে বাড়ি যায়। পরে নিজ কক্ষে ঘুমিয়ে পড়ে সে। সকালে ঘুম থেকে উঠতে দেরি দেখে তার মা ঘরে গিয়ে বিছানার ওপর রাশিকুলকে হাত-পা বাঁধা অবস্থায় দেখতে পেয়ে চিৎকার শুরু করেন। তার চিৎকারে তিনি ঘরে ঢুকে দেখেন হাতের রগ কাটা অচেতন অবস্থায় বিছানায় পড়ে আছে রাশিকুল। পরে তাকে দ্রুত রামেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

রাশিকুল ইসলাম বর্তমানে রামেকের ৩১ নম্বর ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন রয়েছে। তবে কে বা কারা রাশিকুলের হাতের রগ কেটেছে তা কেউ বলতে পারছে না। রাশিকুলের বাবা জানান, তার ছেলের সঙ্গে কারও কোনো শত্রুতা ছিল না। তার জ্ঞান ফিরলে ঘটনা সম্পর্কে জানা যাবে। গোদাগাড়ীর প্রেমতলী পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রর সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) আহসান জানান, ঘটনা সম্পর্কে পুলিশ অবগত নয়। এখন পর্যন্ত কেউ অভিযোগ করেনি।