রাজশাহীতে গ্যাস না পাওয়ায় অসন্তোষ বাড়ছে

রাজশাহী

রাজশাহীতে গৃহস’ালী ও শিল্প-কারখানায় গ্যাসের সংযোগ প্রদান বন্ধ রয়েছে ২ বছর যাবত। এ নিয়ে চরম অসন্তোষ ছড়িয়ে পড়েছে রাজশাহীর গ্যাস সংযোগের জন্য আবেদনকারি ও শিল্প উদ্যোক্তাদের মাঝে।

পশ্চিমাঞ্চল গ্যাস কোম্পানী সূত্র মতে, ২০১৩ সালের ৭ জুন রাজশাহীতে গ্যাসসংযোগ উদ্বোধন করা হয়। এখানে গ্যাস সংযোগের জন্য বিভিন্ন শ্রেণীতে আবেদন করেন ২১ হাজার ৬৩৭ জন। এর মধ্যে সংযোগ দেয়া হয় ৯ হাজার ১৬৪ জনকে। যারমধ্যে শিল্প কারখানার জন্য আবেদন জমা পড়ে মোট ১৯টি। এর মধ্যে ৭টি কারখানায় সংযোগ দেয়া হয়। এছাড়া ক্যাপটিভ শ্রেণীতে সংযোগ দেয়া হয় ১টি এবং সিএনজি শ্রেণীতে সংযোগ দেয়া হয় ১টি। চাহিদাপত্রের অর্থ জমা দেবার পরেও সংযোগ পাননি এমন গ্রাহকের সংখ্যা ৫৪২টি। ২০১৫ সালের জুন মাস থেকে সব ধরনের গ্যাস সংযোগ বন্ধ করে দেয়া হয়। সবার শেষে গ্যাস সংযোগ দেয়া শুর্ব করার ২ বছরের মাথায় সংযোগ দেয়া বন্ধ করা হয় রাজশাহীতে। এ নিয়ে চরম ৰোভ দেখা দিয়েছে রাজশাহীর গ্যাস সংযোগের জন্য আবেদনকারি ও শিল্প উদ্যোক্তাদের মাঝে।

চাহিদাপত্রের অর্থ জমা দিয়েও সংযোগ পাননি এমন একজন গ্রাহক বলেন, দেশের মধ্যে সব শেষে গ্যাসের সংযোগ দেয়া শুর্ব হয় রাজশাহীতে। গ্যাসের জন্য আবেদনকারিদের মধ্যে অর্ধেক গ্রাহককে সংযোগ না দিতেই এখানে সংযোগ দেয়া বন্ধ করে দেয়া হয়। এমনকি তার মত টাকা-পয়সা জমা দিয়েও অনেকে সংযোগ পায়নি। পিছিয়ে পড়া রাজশাহীকে এগিয়ে নিতে বিশেষ নির্দেশনায় এখানে গ্যাস সংযোগ চালু করা উচিত বলে তিনি মনে করেন।

রাজশাহী সদর আসনের সংসদ সদস্য জননেতা ফজলে হোসেন বাদশা সমপ্রতি জাতীয় সংসদে বক্তব্যে বলেন, রাজশাহীতে গ্যাস সংযোগ দেয়া শুর্বর পরপরই নতুন সংযোগ দেয়া বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। এতে কোটি কোটি টাকা খরচ করে মহৎ উদ্দেশ্য নিয়ে রাজশাহীতে গ্যাসের লাইন টেনে একদিকে সরকার ৰতিগ্রস’ হচ্ছে, অন্যদিকে সংযোগ না পাওয়ায় এখানকার মানুষ গ্যাসের সুফল থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। এছাড়া গ্যাসের কারনে এখানে শিল্পায়ন ও কর্মসংস’ান না হওয়ায় উন্নয়ন বাধাগ্রস’ হয়েছে। অথচ বিশেষ ব্যবস’ায় এখানে গ্যাস সংযোগ দেয়া হলে রাজশাহীর উন্নয়ন ত্বরান্বিত হবে। তাই তিনি পিছিয়ে পড়া রাজশাহীকে এগিয়ে নিতে এখানে গ্যাস সংযোগ চালুর দাবী জানান।

বাংলাদেশ রেশম শিল্প মালিক সমিতির সভাপতি ও রাজশাহী রৰা সংগ্রাম পরিষদের সভাপতি মো: লিয়াকত আলী বলেন, গ্যাসের জন্য আবেদনকারিদের মধ্যে অর্ধেক গ্রাহকও এখানে গ্যাসের সংযোগ পায়নি। অনেকে সংযোগের জন্য টাকা জমা দেবার পর সংযোগ পায়নি। অথচ তাদের টাকা গ্যাস অফিসে জমা রয়ে গেছে। বিশেষ ব্যবস’ায় এখানে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ও শিল্প-কারাখানায় গ্যাস সংযোগ দেয়া হলে অনগ্রসর রাজশাহীকে দ্র্বত এগিয়ে নিয়ে যাওয়া সম্ভব হবে বলে তিনি মনে করেন।

এ ব্যাপারে পশ্চিমাঞ্চল গ্যাস কোম্পানী লিমিটেড রাজশাহী রিজিওনাল অফিসের ম্যানেজার ইঞ্জিনিয়ার এ এফ এম আজাদ কামাল দুলাল বলেন, ২০১৫ সালের জুন থেকে সারা দেশের ন্যায় রাজশাহীতেও গৃহস’ালি ও শিল্প শ্রেণীসহ সকল শ্রেণীর গ্যাস সংযোগ বন্ধ আছে। চাহিদাপত্রের টাকা দিয়েও অনেকে সংযোগ পাননি। নতুন নির্দেশনা পেলে আবার সংযোগ দেয়া শুর্ব হবে।

খবরঃ sonali sangbad

2 thoughts on “রাজশাহীতে গ্যাস না পাওয়ায় অসন্তোষ বাড়ছে

Comments are closed.