রাজশাহীতে ট্রেনে কাটা পড়ে এক ব্যক্তির মৃত্যু

রাজশাহী

রাজশাহীতে মেয়ের বাড়িতে বেড়াতে এসে ট্রেনে কাটা পরে গোলাপ হোসেন (৫০) নামে এক বাবার মৃত্যু হয়েছে।

মঙ্গলবার (১৫ আগস্ট) সন্ধ্যায় মহানগরীর রাজপাড়া থানার টুলটুলিপাড়া এলাকায় এই দুর্ঘটনা ঘটে।  নিহতের বাড়ি পবা উপজেলার হরিপুর গ্রামে।

প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে রাজশাহীর রাজপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হাফিজুর রহমান জানান, সন্ধ্যায় রাজশাহী থেকে একটি কমিউটার ট্রেন চাঁপাইনবাবগঞ্জের দিকে যাচ্ছিলেন তিনি। ট্রেনটি টুলটুলি পাড়া এলাকায় পৌঁছালে রেলের লাইনের উপর দিয়ে অবচেতন মনে হাঁটতে থাকা গোলাপ হোসেনের ধাক্কা লাগে। ধাক্কা খেয়ে পড়ে ওই ট্রেনের নিচেই কাটা পড়েন। এতে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়।

পরে স্থানীয়রা রেল লাইনে ওপর থেকে তার মরদেহ সরিয়ে রেখে থানায় খবর দেয়। পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে জিআরপি থানায় জানায়। এ সময় জিআরপি থানা পুলিশ গিয়ে মরদেহটি উদ্ধার করে। এই ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা হয়।

রাজশাহীর জিআরপি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আকবর হোসেন জানান, নিহত ব্যক্তি আত্মহত্যা করেছেন না অসাবধানতা বশত: দুর্ঘটনায় পড়ে তার মৃত্যু হয়েছে তা স্পষ্ট নয়। তবে পবা থেকে মেয়ের বাড়িতে বেড়াতে এসে ট্রেনে কাটা পড়েছেন বলে প্রাথমিকভাবে নিশ্চিত হয়েছেন।

এজন্য তার জামাতা আইনাল হোসেনকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। এই ব্যাপারে থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা হয়েছে বলেও জানান জিআরপি থানার এই পুলিশ কর্মকর্তা।

খবরঃ বাংলানিউজ

4 thoughts on “রাজশাহীতে ট্রেনে কাটা পড়ে এক ব্যক্তির মৃত্যু

Comments are closed.