রাজশাহীতে ভার্চুয়াল কোর্টে জামিন পেলেন দু’জন

রাজশাহী

রাজশাহীতে ভার্চুয়াল কোর্টে দুই আসামি জামিন পেয়েছেন। বুধবার সিএমএম আদালতের ভার্চুয়াল কোর্ট-১ এ ইমেইলের মাধ্যমে জামিনের আবেদন করেন তাদের নিযুক্ত আইনজীবীরা।

এরই প্রেক্ষিতে অনলাইন শুনানির মাধ্যমে ভার্চুয়াল কোর্ট-১ এর বিচারক ও ভারপ্রাপ্ত চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মো. মাহবুবুর রহমান আসামিদের জামিন আবেদন মঞ্জুর করেন। প্রত্যেক আসামিকে ২০ হাজার টাকা মুচলেকায় আসামিদের রিলিজপত্র ইস্যু করেন।

জামিন প্রাপ্তরা হলেন- রাজশাহী জেলার পুঠিয়া উপজেলার বিড়ালদহ সাইপাড়া গ্রামের মকসেদ আলীর ছেলে মহসীন এবং তানোর থানার দেউলা গ্রামের মৃত ওহাব আলীর ছেলে ইউসুফ আলী ওরফে আপেল। অনলাইনের মাধ্যমে আসামিদের পক্ষে জামিননামা দাখিল করেন অ্যাডভোকেট মনির হোসেন সবুজ ও অ্যাডভোকেট শরিফুল ইসলাম।

গত ১০ মে বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগ তার-২১১নং বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে আদালতে শারীরিক উপস্থিতি রোধ ও সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিত করে ভার্চুয়াল কোর্ট পরিচালনার নির্দেশ দেন। করোনাভাইরাস জনিত ছুটিকালিন সপ্তাহিক ও বর্ষপঞ্জির ছুটির সময় ব্যতীত এ আদালত ভার্চুয়াল উপস্থিতির মাধ্যমে শুধু হাজতি আসামির জামিন সংক্রান্ত বিষয়সমূহ শুনানির মাধ্যমে নিষ্পত্তি করার লক্ষ্যে কাজ করবে।

এদিকে ভার্চুয়াল কোর্টে অংশগ্রহণ বিষয়ে বুধবার রাজশাহী অ্যাডভোকেট বার এসোসিয়েশনের সভাকক্ষে বিশেষ সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় উপস্থিত আইনজীবীদের সংখ্যাগরিষ্ঠ মতামতের ভিত্তিতে ভার্চুয়াল কোর্টে অংশগ্রহণ না করার বিষয়ে সিদ্ধান্ত হয়।

এর কারণ হিসেবে আইনজীবীদের প্রযুক্তি ও অবকাঠামোগত সমস্যা ও ভার্চুয়াল কোর্ট পরিচালনার বিষয়ে জ্ঞান না থাকার বিষয় উল্লেখ করা হয়েছে।

বুধবার রাজশাহী অ্যাডভোকেট বার সমিতির সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট পারভেজ তৌফিক জাহেদী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

খবর কৃতজ্ঞতাঃ জাগোনিউজ২৪