রাজশাহীর প্রত্নতাত্ত্বিক স্থাপনা ও দর্শনীয়স্থানঃ গোপাল মন্দির, পুঠিয়া

ইতিহাস এবং মুক্তিযুদ্ধ পর্যটন পুঠিয়া রাজশাহী রাজশাহী বিভাগ রাজশাহীর পরিচিতি

গোপাল মন্দির রাজশাহীর, পুঠিয়া উপজেলার অন্তর্গত একটি প্রাচীন মন্দির এবং এটি বাংলাদেশ প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তর এর তালিকাভুক্ত প্রত্নতাত্ত্বিক স্থাপনাগুলোর একটি।

অবস্থান

রাজশাহী জেলা সদর হতে ৩২ কিঃ মিঃ উত্তর-পূর্ব দিকে পুঠিয়া রাজবাড়ির বিশাল চত্বরের বেশ কয়েকটি নজরকাড়া প্রাচীন মন্দিরের মধ্যে এটি একটি। চারআনি মন্দির চত্বরের উত্তর পাশে এর অবস্থান।

অবকাঠামো

বড় আহ্নিক মন্দিরের পাশে অবস্থিত আয়তাকার এই মন্দিরের দৈর্ঘ্য ১২.৮০ মিটার ও প্রস্থ ৭.৮০ মিটার। দক্ষিণমুখী এই মন্দিরের উত্তর দিক ব্যতীত অপর তিন দিকে বারান্দা রয়েছে এবং পশ্চিম দিকে দ্বিতীয় তলায় উঠার জন্য সিঁড়ি রয়েছে। এই মন্দিরের দক্ষিণ দিকে ৩টি এবং পূর্ব ও পশ্চিম দিকে একটি করে প্রবেশমুখ রয়েছে। এছাড়া উপর তোলার কক্ষের দক্ষিণ দিকে ৩টি ও পশ্চিম দিকে একটি প্রবেশ পথ রয়েছে। নীচতলায় প্রধান প্রবেশ পথে একটি পোড়ামাটির মূর্তি আছে। তবে পুঠিয়া মন্দির চত্বরের অন্যান্য মন্দিরের মত এই মন্দিরে তেমন কোন অলঙ্করণ চোখে পড়ে না। এর উপর তলার কক্ষটি নিচের তলার কক্ষের চেয়ে বেশ ছোট।

1 thought on “রাজশাহীর প্রত্নতাত্ত্বিক স্থাপনা ও দর্শনীয়স্থানঃ গোপাল মন্দির, পুঠিয়া

Comments are closed.