‘রাজশাহীর সমাজে স্থান নেই বলেই রাস্তায় নামি’

রাজশাহী

আগেতো মানুষ, তার পরে না হিজড়া। কিন’ লিঙ্গ পরিচয়ের আস্তরণে মানুষত্বের স্বীকৃতিটাই হারিয়ে গেছে আমাদের। মানুষ হিসেবেই আমাদের গণ্য করা হয়না। অথচ আমাদেরও পেট আছে। ৰুধা পেলে আমরাও কষ্ট পাই। ঘুম পেলে ঘুমোতে হয়। সেজন্য মাথার ওপর ছায়াও লাুেগ। কিন’ কোথায় পাবো এসব। আমাদের কষ্ট কেউ বোঝে না, বুঝতে চায়ও না। আমাদের না হয় ঠাঁই পরিবারে, না হয় সমাজে। আর কোথাও স’ান নেই বলেই বাধ্য হয়ে রাস্তায় নামি। না হলে কে চায় সকালে উঠেই ভারী মেকআপ করে সঙ সেজে মানুষের বাড়ির দুয়ারে-%