রাবিতে বিজয় দিবসে পথশিশুদের পাশে দাঁড়ালো “স্বজন”

রাজশাহী রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়

“শিশু নিকেতন” রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের উদ্যোগে পরিচালিত একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। যেখানে বিশ্ববিদ্যালয় সংলগ্ন আশে-পাশির সুবিধাবঞ্চিত ও অসহায় পথশিশুদের পড়ানো হয়। যে শিশুগুলোর জীবন-যাপন নির্ভরকরে বিভিন্ন সাহায্য-সহযোগীতার ওপর। আর তাই বিকেল ৪টায় কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে এই বঞ্চিত শীতার্তদের মাঝে শতাধিক কম্বল ও শীতবস্ত্র বিতরন করে স্বেচ্ছায় রক্তদাতা সংগঠন স্বজন।

১৬ই ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে সংগঠনটি র‌্যালি, শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ ও শহীদ ক্যাপ্টেন এম মনসুর আলী প্রশাসনিক ভবনের সামনে ফ্রি ব্লাড গ্রুপিং ক্যাম্পেইনের আয়োজন করে।

দিনব্যাপি এই কর্মসূচিতে মোস্তাফিজুর রহমানের সভাপতিত্বে এবং আবদুল্লাহ মুহাম্মাদ তাহিরের সঞ্চালনায় উপদেষ্টা প্রফেসর ড. আনোয়ারুল কবির ভূইয়া বলেন, স্বজন ২০০২ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়ে আজ পর্যন্ত সক্রিয়ভাবে রক্তদানের মত মহৎ পেশার কাজ করে যাচ্ছে। সেই সাথে বিভিন্ন সময়ে শীতবস্ত্র বিতরনের পাশাপাশি সমাজসেবা মুলক কাজ করে যাচ্ছে। তিনি স্বজনের এই কার্যক্রমকে দেশব্যাপী ছড়িয়ে দিতে আহবান করেন এবং স্বজনের ধারাবাহিক সফলতা কামনা করেন।

এছাড়াও অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন স্বজনের উপদেষ্টা ইতিহাস বিভাগের প্রফেসর ড. মোহাম্মদ শেরেজ্জামান, সমাজবিজ্ঞান বিভাগের প্রফেসর ড. ওয়ারদাতুল আকমাম, প্রাণ রসায়ন বিভাগের প্রফেসর ড. আসাদুজ্জামান, প্রফেসর মো. আব্দুল আজিজ, জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রফেসর মো. সালাউদ্দিন, শিশু নিকেতনের চেয়ারম্যান ও প্রধান উপদেষ্টা সমাজবিজ্ঞান বিভাগের প্রফেসর ড. মুহা. জুলফিকার আলী ইসলাম ও প্রফেসর ড. এম. ফয়জার রহমান, অ্যাসোসিয়েট প্রফেসর মাহবুবা সরকার, বেগম খালেদা জিয়া হলের প্রাধ্যক্ষ অ্যাসিস্ট্যান্ট প্রফেসর মো.সালেহ মাহমুদ,বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের লেকচারার মো. আরিফুল ইসলাম প্রমুখ।

খবর কৃতজ্ঞতাঃ ক্যাম্পাসলাইভ২৪