রাবিতে শেখ রাসেলের ৫১তম জন্মদিবস উদযাপিত

ক্যাম্পাসের খবর রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়

বিভিন্ন কর্মসূচীর মধ্য দিয়ে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে পালিত হয়েছে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কনিষ্ঠ পুত্র শেখ রাসেলের ৫১তম জন্মদিবস । দিবসটি উপলক্ষে রবিবার সকাল ১০টায় শেখ রাসেল স্কুল প্রাঙ্গণে জন্মদিনের কেক কাটেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর মুহম্মদ মিজানউদ্দিন।

পরে রাবি শেখ রাসেল স্কুল প্রাঙ্গণে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। এসময় আলোচনা অনুষ্ঠানে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য প্রফেসর চৌধুরী সারওয়ার জাহান, রাজশাহীতে নিযুক্ত ভারতীয় সহকারী হাইকমিশনার সন্দ্বীপ মিত্র ও তাঁর স্ত্রী শ্রীমতি সীমা মিত্র, শিক্ষা ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের পরিচালক প্রফেসর মো. আনসার আলী, রেজিস্ট্রার প্রফেসর মুহাম্মদ এন্তাজুল হক, সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের অধিকর্তা প্রফেসর নীলুফার সুলতানা, ছাত্র উপদেষ্টা প্রফেসর মো. ছাদেকুল আরেফিন, স্কুলের অধ্যক্ষ মোমেনা জীনাতসহ স্কুলের শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও অভিভাবকগণ উপস্থিত ছিলেন।

আলোচনায় বক্তারা বলেন, শিশুরা নিষ্পাপ, ফুলের মত পবিত্র। শেখ রাসেলকে হত্যার সময় সে ছিল শিশু। কিন্তু সেও ঘাতকের রোষানল থেকে রেহাই পায়নি। স্বাধীন বাংলাদেশে জাতির জনকের পুত্র কত অসহায় ও বিপন্ন ছিল তা এই হত্যাকা- থেকেই বোঝা যায়। শিশু হত্যার মত এই নির্মম ঘটনা আমাদের গোটা জাতিকে অপরাধী করে দেয়। আজ শেখ রাসেল বেঁচে থাকলে একজন পূর্ণাঙ্গ মানুষ হিসেবে দেশ ও জাতির অন্যতম কৃতী সন্তান হতে পারতেন।

স্কুলের শিক্ষক ড. সৈয়দা দিলরুবা ও নূরজাহান বেগমের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন স্কুলের উপাধ্যাক্ষ লায়লা আরজুমান।
দিবসটি উপলক্ষে শেখ রাসেল মডেল স্কুল আয়োজিত কর্মসূচির মধ্যে আরো ছিল চিত্রাংকন ও রচনা প্রতিযোগিতা, শোভাযাত্রা ইত্যাদি।