রাবির ভর্তি পরীক্ষায় জালিয়াতি করে উত্তীর্ণ হওয়া ভর্তিচ্ছুকে পুলিশে সোপর্দ

ক্যাম্পাসের খবর রাজশাহী রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষে ভর্তি পরীক্ষায় জালিয়াতি করে উত্তীর্ণ হওয়া এক ভর্তিচ্ছুকে পুলিশে দিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। মঙ্গলবার আইন অনুষদের ভাইভা দিতে এসে উত্তরপত্রের লেখার সঙ্গে ভর্তিচ্ছুর হাতের লেখার মিল না থাকায় তাকে আটক করা হয়।

আটককৃত ভর্তিচ্ছুর নাম খলিলুর রহমান। তিনি যশোহর সদর থানার তোফায়েল আহমদের ছেলে। তার ভর্তি পরীক্ষার রোল: বি১- ২০০৩২। পরীক্ষার ফলাফলে  ৬১ নম্বর পেয়ে ১৬তম হয়েছিল। বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর দফতর সূত্রে জানা, মঙ্গলবার সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের ডীনসহ কমপ্লেক্সে আইন অনুষদের ভাইভা পরীক্ষা চলছিল।

খলিলুর রহমান নামের ওই শিক্ষার্থী ভাইভা দিতে আসে। এসময় তার একাডেমিক বিভিন্ন কাগজপত্র দেখে ভাইভা বোর্ডে থাকা শিক্ষকদের মনে সন্দেহ হয়। ভর্তিচ্ছুর উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার নম্বরপত্রে দেখা যায়, সেখানে ইংরেজিতে সে ‘ডি’ গ্রেড পেয়ে উত্তীর্ণ হয়েছে।

অথচ ভর্তি পরীক্ষায় সে ইংরেজি বিষয়ের লিখিত অংশে দশের মধ্যে সাত পেয়েছে। ভর্তিচ্ছুকে একটি সাদা কাগজে তার নাম লিখতে বলা হয়। ভর্তিচ্ছু তার নাম লিখলে দেখা যায়- ভর্তি পরীক্ষার লিখিত অংশের উত্তরের সঙেঙ্গ তার হাতের লেখার কোনো মিল নেই।

প্রক্টর অধ্যাপক লুৎফর রহমান জানান, জালিয়াতি করে ভর্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়া ভর্তিচ্ছুকে পুলিশে দেয়া হয়েছে। পুলিশ তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করে আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নিবে।

খবরঃ ডেইলি সানশাইন

6 thoughts on “রাবির ভর্তি পরীক্ষায় জালিয়াতি করে উত্তীর্ণ হওয়া ভর্তিচ্ছুকে পুলিশে সোপর্দ

Comments are closed.